সোনালী ব্যাংক স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলার নিয়ম ও সুবিধা

আপনি কি সোনালী ব্যাংকের স্টুডেন্ট একাউন্ট সম্পর্কে জানতে চাচ্ছেন? এখানে এ বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে।

সোনালী ব্যাংক স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলার নিয়ম

রাষ্ট্রায়ত্ব ব্যাংক Sonali bank ছাত্রছাত্রীদের বিশেষ সুবিধার কথা মাথায় রেখে সোনালী ব্যাংক স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলার নিয়ম চালু করেছে। এখানে স্কুল/কলেজ পড়ুয়া ছেলে মেয়েরা তাদের দৈনিক হাত খরচ থেকে টাকা জমানোর জন্য সাধারণ সেভিংস একাউন্ট থেকে ভিন্ন কিছু সুযোগ সুবিধা উপভোগ করতে পারবে।

ছাত্রছাত্রীদের সুবিধার্থে এই পোস্টে আমরা দেখবো সোনালী ব্যাংক স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলার নিয়ম কি, স্টুডেন্ট একাউন্টের জন্য কি কি লাগে, এবং এই একাউন্ট করার সুবিধা গুলো কি কি। চলুন তাহলে শুরু করা যাক।

সোনালী ব্যাংক স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলার নিয়ম

অন্য সব একাউন্টের তুলনায় স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলা খুবই সহজ। স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলার জন্য যা যা লাগবে তা হলো জন্ম নিবন্ধন, স্টুডেন্ট কার্ড, নমিনির এনআইডি ও ছবি ইত্যাদি। এগুলো নিয়ে আপনার নিকটস্থ ব্যাংক শাখায় চলে যান। সেখানে আপনাকে একটি ফর্ম দিবে, তা পূরণ করে আপনার ডকুমেন্টস সহ ব্যাংকে জমা দিন। সাথে আপনার প্রাইমারি ডিপোজিট সম্পন্ন করলে আপনার একাউন্ট খোলার কাজ সম্পন্ন হয়ে যাবে।

প্রয়োজনিয় সকল জিনিস জমা দেয়ার পর আপনার কাছ থেকে ব্যাংক একদিন সময় নিতেও পারে। তারপর তারা আপনার তথ্য পর্যালোচনা করে একাউন্ট রেডি করে আপনাকে ম্যাসেজ এর মাধ্যমে জানিয়ে দিবে যে আপনার একাউন্ট খোলা সম্পন্ন হয়েছে কিনা।

একটি স্টুডেন্ট একাউন্টের ক্ষেত্রে প্রচলিত সেভিংস একাউন্টের থেকে ভিন্ন কিছু ডকুমেন্টস দরকার হয়ে থাকে। এই প্রয়োজনিয় ডকুমেন্টস গুলোর একটি লিস্ট আপনি নিচে পেয়ে যাবেন।

আর ব্যাংক থেকে আপনাকে যে ফর্মটি দিবে তা ডকুমেন্টস দেখে সুন্দর ভাবে পূরণ করতে হবে। কখন কখন ব্যাংকের কোনো এমপ্লয়ি আপনার ফর্মটি হয়তো পূরণ করে দিবে। যা আপনার জন্য তা আরো সহজ হবে। তখন আপনি শুধু তাদের আপনার ডকুমেন্টস অনুযায়ি সঠিক তথ্য দিন।

আরো পড়ুন- সোনালী ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম

সোনালী ব্যাংক স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলার জন্য কি কি লাগে?

  • স্টুডেন্টের জন্ম নিবন্ধন কার্ড লাগে, এনআইডি থাকলে তাও দেয়া যাবে ।
  • শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে দেয়া স্টুডেন্টের পরিচয় পত্র এর একটি ফটো কপি।
  • স্টুডেন্ট যে প্রতিষ্ঠানে আছে সে প্রতিষ্ঠান থেকে নেয়া প্রত্তয়ন পত্র।
  • দুই কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি যা সম্প্রতি তোলা হয়েছে এমন।
  • তার নমিনির এক কপি ছবি ও তার এনআইডি কার্ড এর একটি কপি।

ব্যাংকে একাউন্ট খুলতে যাওয়ার আগেই এই সকল ডকুমেন্টস সংগ্রহ করে নিতে হবে। একাউন্ট খোলার সময় একাউন্ট ফর্মের সাথে এই ডকুমেন্টস সাবমিট করতে হবে।

সোনালী ব্যাংকে স্টুডেন্ট একাউন্ট খুলতে কতো টাকা লাগে?

সোনালী ব্যাংকে একটি স্টুডেন্ট একাউন্ট করার জন্য ছাত্রছাত্রীরা মাত্র ২০০ টাকা দিয়ে একাউন্ট চালু করতে পারবে। অন্য সাধারণ একাউন্টে এর এমাউন্ট অনেক বেশি। তবে স্টুডেন্ট একাউন্টের ক্ষেত্রে এটি মাত্র ২০০ টাকা।

আরো পড়ুন- সোনালী ব্যাংকে টাকা জমা দেওয়ার নিয়ম

সোনালী ব্যাংকে স্টুডেন্ট একাউন্টে কি কি সুবিধা আছে?

  • মাত্র ২০০ টাকায় একাউন্ট খোলার সুবিধা
  • এই ২০০ টাকাই ন্যূনতম স্থিতি
  • এ একাউন্টের কোনো ধরনের মেনটেনেন্স চার্জ নেই
  • হিসাবধারীর ২৩ বছর হলে স্বয়ংক্রিভাবে একাউন্ট সেভিংস একাউন্টে রূপান্তর করার সুযোগ
  • ডেবিট কার্ড সুবিধা পাওয়া যাবে মাত্র ২০০ টাকা বাৎসরিক চার্জে
  • বিকাশের সাথে একাউন্ট কানেক্ট করে টাকা ট্রান্সফারের সুবিধা

এগুলো ছাড়াও আরো অনেক ধরণের সুযোগ সুবিধা সোনালী ব্যাংক ছাত্রছাত্রীদের জন্য স্টুডেন্ট একাউন্টে ‍দিয়ে থাকে। আরেকটি বিষয় হলো, আপনি চাইলে সোনালী ব্যাংকের একাউন্ট ঘরে বসে চেক করতে পারবেন (সোনালী ব্যাংক একাউন্ট চেক করার নিয়ম)।

স্টুডেন্ট একাউন্ট সম্পর্কে আরো পড়ুন- স্টুডেন্ট ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম

বিভিন্ন ব্যাংকের স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলার নিয়ম জানুন

অগ্রণী ব্যাংকঅগ্রণী ব্যাংক স্টুডেন্ট একাউন্ট
ইসলামী ব্যাংকইসলামী ব্যাংক স্টুডেন্ট একাউন্ট
ব্যাংক এশিয়াব্যাংক এশিয়া স্টুডেন্ট একাউন্ট
রুপালী ব্যাংকরূপালী ব্যাংক স্টুডেন্ট একাউন্ট
ডাচ বাংলাডাচ বাংলা ব্যাংক স্টুডেন্ট একাউন্ট
বিভিন্ন ব্যাংকের স্টুডেন্ট একাউন্ট।

আরো পড়ুন

অনলাইন সেবাসোনালী ব্যাংক অনলাইন ব্যাংকিং
ব্যাংকিংঅনলাইন ব্যাংকিং
হোমে যানbankline

আরো পড়ুন- সোনালী ব্যাংক সেভিংস একাউন্ট চার্জ

Similar Posts

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।