সহজে ইসলামী ব্যাংকের চেক লেখার নিয়ম ছবি ও ভিডিও সহ

ইসলামী ব্যাংকের চেক লেখার নিয়ম খুজছেন? তবে আপনি একদম সঠিক জায়গায় এসেছেন। এখানে ছবি সহ চেক লেখার নিয়ম আলোচনা করা হয়েছে।

ইসলামী ব্যাংকের চেক লেখার নিয়ম

আমরা অনেক সময় দ্বিধাদন্ধে থাকি যে ইসলামী ব্যাংকের চেক লেখার নিয়ম কি বা কোন অপশনে কোনটি লিখা উচিৎ। পরিষ্কার কোনো ধারণা না থাকার কারণে চেক লিখতে বসে গোলমাল পাকিয়ে ফেলা বা কাটাছেড়া করার ইতিহাসও অনেকের আছে নিঃশ্চই। তবে চেক সম্পর্কে ধারণা থাকলে এমনটা সচরাচর হয়না।

যাই হোক, এই পোস্টে আপনার সুবিধার্থে ছবিসহ সহজে ইসলামী ব্যাংকের চেক লেখার নিয়ম বিস্তারিত ভাবে দেখানো হয়েছে। চেকের কোন অংশ লিখতে হবে আর কোন অংশ না লিখলেও চলবে তা আপনি এখানে সহজেই বুঝতে পারবেন আশা করি। আর সবার নিচের দিকে একটি চেক পূরণ করেও দেখানো হয়েছে। চলুন তাহলে শুরু করা যাক।

ইসলামী ব্যাংকের চেক লেখার নিয়ম

আপনার ইসলামী ব্যাংকের একাউন্ট থেকে টাকা তুলতে আপনি যেভাবে আপনার চেক লিখতে পারেন কোনো প্রকার কনফিউশন ছাড়া, তা নিচে পর্যায়ক্রমে বিস্তারিত তুলে ধরা হলো। আপনার সুবিধার্থে ব্যাংকের চেকের ছবি সহ দেয়া হলো।

ইসলামী ব্যাংকের চেক লেখার নিয়ম ছবিসহ

ইসলামী ব্যাংকের এই চেকে সর্বোমোট দুটি অংশ আছে। একটি অংশ গ্রাহকের জন্য এবং আরেকটি অংশ ব্যাংকের জন্য। উপরে ছবি দেখলে বুঝতে পারবেন। তবে ব্যাংকের অংশে দুটি আলাদা অংশ থাকে। বড় অংশটি গ্রাহক কে পূরণ করতে হবে, আর ছোট অংশ ব্যাংক পূরণ করবে। এখন আসুন দেখে নেয়া যাক কোন অংশে কি লিখতে হবে।

গ্রাহকের অংশ যেভাবে লিখবেন

গ্রাহকের অংশটি চেকের সাথে গ্রাহকের কাছেই থাকবে। এখানে শুধু গ্রাহক কতো তারিখে কতো টাকা তুলছেন এবং কে তুলছেন তা লিখে রাখবেন। এতে করে পরে তা দরকারে হিসাবের ক্ষেত্রে বা অন্য কাজে ব্যবহার করা যাবে।

এখানে MSA No এর জায়গায় আপনার একাউন্ট নাম্বার, তারপর ডেইট বা তারিখ, Payee বা টাকা প্রাপ্তা, এবং টাকার পরিমাণ লিখতে হবে।

ব্যাংক চেকের মূল অংশ যা গ্রাহক কে অবশ্যই পূরণ করতে হবে

চেক পূরণ করতে পারবেন বাংলায় বা ইংলিশে। চেকের বড় অংশটি যেভাবে পূরণ করবেন তা নিচে ব্যাখ্যা করা হলো।

#Pay To

চেকের ব্যাংকের অংশের গ্রাহক কতৃক পূরণিয় যে অংশটি আছে, সেখানে Pay To একটি অপশন আছে। এই অপশনে আপনাকে উল্লেখ করতে হবে আপনি কাকে টাকা গুলো দিচ্ছেন।

ধরুন আপনি আপনার নিজের জন্য টাকা গুলো তুলতে চান। তবে আপনাকে লিখতে হবে “নিজ” বা “Self“। আবার যদি চান অন্য কাউকে টাকা দিতে, তবে তার নাম উল্লেখ করবেন।

#The Sum of Taka

এখানে আপনাকে আপনার টাকার পরিমাণ লিখতে হবে। ধরুন আপনি ১০,০০০ টাকা তুলতে চান, তবে তা আপনাকে কথায় লিখতে হবে ”দশ হাজার টাকা মাত্র”, বা “Ten Thousand Taka Only“। লিখে দুপাশে কলম দিয়ে টেনে দিন। আরো ভালো করে বুঝতে নিচে আরেকটি চেকের ছবি দেয়া হয়েছে, যা নিচের দিকে দেখতে পারবেন।

#TK

The Sum of Taka এর ডানে TK এই অংশে আপনাকে আপনার টাকার পরিমাণ অংকে লিখতে হবে। যদি ১০,০০০ টাকা তুলতে চান তবে লিখতে হবে “১০,০০০/-”, বা “10,000” যেখানে ডান দিকে আমি (/-) এটি ব্যবহার করেছি।

এর কারণ হলো, ১০,০০০ এর পাশে যেনো আর কোনো শূন্য বা অন্য কোনো সংখ্যা দেয়ার মতো জায়গা না থাকে। কেউ যাতে এখানে চালাকি করে কিছু না করতে পারে এই জন্য সতর্কতা সরুপ এই ব্যবস্থ নিতে হবে। আর প্রয়োজন অনুযায়ি কমাও ব্যবহার করতে হবে।

#Date

Date অংশটি পেয়ে যাবেন ডান দিকে একদম উপরে। এখানে খোয়াল করলে দেখতে পারবেন যে কিছু বক্স দেয়া আছে। বক্সের নিচে D D M M Y Y Y Y এমন লিখা আছে। এখানে D অংশে তারিখ, M অংশে মাস, এবং Y অংশে বছর দিতে হবে। যেমন ২ ১ ১ ২ ২ ০ ২ ৩ এভাবে বা 21 12 2023 এভাবে দিন, মাস এবং বছর দিতে হবে। আরো ভালো করে বুঝতে নিচে ছবি দেখুন।

#Please Sign Above the line

নিচের দিকে খেয়াল করলে দেখতে পারবেন যে ছোট করে লিখা Please Sign Above the line, যেখানে আপনাকে আপনার সিগনেচার দিতে হবে। সেই সাথে চেকের পিছনে দুটি সিগনেচার দিয়ে দিবেন এবং সাথে আপনার মোবাইল নাম্বার টিও দিয়ে দিবেন। আরো ভালো করে বুঝতে নিচে ছবিটি লক্ষ করুন।

ইসলামী ব্যাংকের চেক লেখার নিয়ম ছবিসহ

চেক লেখার সময় প্রয়োজনিয় সতর্কতা

  • টাকার পরিমাণ অংকে লিখার সময় /- চিন্হ ব্যবহার করুন।
  • টাকার পরিমাণ এবং /- চিন্হের মাঝখানে কোনো ফাকা জায়গা রাখবেন না, যেমন: (১০,০০০ /-) এভাবে। এতে কেউ চাইলে মাঝে আরেকটি শূন্যও বসিয়ে দিতে পারে।
  • চেকে কি লিখবেন আগেই ঠিক করুন যাতে কাটা ছেড়া না হয়।
  • একদিনে একটির বেশি চেক ব্যবহার করতে পারবেন না। তাই এব্যপারটি মাথায় রাখবেন যাতে সমস্যায় না পড়তে হয়।
  • চেক লিখার পর চেকের পিছনে আপনার সিগনেচার দুবার আপনার মোবাইল নাম্বার সংযুক্ত করে দিন।

শেষকথা

চেক সব সময় ক্লিন রাখার চেষ্টা করবেন। কোনো প্রকার কাটা ছেড়া করবেন না। আর যদি কাটা ছেড়া হয়ে যায় তবে চেষ্টা করবেন তা একটানে কেটে আশে পাশে খালি জায়গায় লিখতে।

চেক যদি কোনো ভাবে হারিয়ে যায় তবে দ্রুত সংশ্লিষ্ট ব্যাংক শাখায় যোগাযোগ করুন এবং তাদের ইনফর্ম করুন। তারা আপনার চেকটি বাতিল করবে। অন্যথায় এটির মিসইউজ হতে পারে।

আর আপনি চাইলে চেক ছাড়াও কার্ড দিয়ে আপনার টাকা উত্তোলন করতে পারবেন। ইসলামী ব্যাংকের এমই একটি কার্ড হলো সুদমুক্ত ইসলামী ব্যাংক খিদমাহ ক্রেডিট কার্ড

ভিডিওতে দেখুন চেক লেখার নিয়ম

প্রশ্ন এবং উত্তর

চেক কোন ভাষায় লিখতে হবে?

আপনি চাইলে বাংলা বা ইংরেজিতে ইসলামী ব্যাংকের চেক লেখতে পারবেন। তবে মিশ্র ভাষা গ্রহণ যোগ্য নয়।

চেক জমা দেওয়ার নিয়ম কি?

চেক ঠিকঠাক লিখে ব্যাংকের কাউন্টারে জমা দিলেই আপনার টাকা তারা আপনাকে দিয়ে দিবে।

ইসলামী ব্যাংকের অন্য পোস্টগুলো পড়ুন

১. ইসলামী ব্যাংক লোন সংক্রান্ত যাবতিয় তথ্য
২. ইসলামী ব্যাংক ডিপিএস সংক্রান্ত যাবতিয় তথ্যাদি
৩. বিদেশ থেকে ইসলামী ব্যাংকে টাকা পাঠানোর নিয়ম
৪. ইসলামী ব্যাংক অনলাইন রেজিস্ট্রেশন করার নিয়ম
ইসলামী ব্যাংকের অন্য পোস্টগুলো

হোম পেজে যেতে ক্লিক করুন bankline এ।

Similar Posts

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।